,



সিক্সটি মিনিটস–এর পর চুপ ডোনাল্ড ট্রাম্প

Spread the love

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে অরক্ষিত শারীরিক সম্পর্ক স্থাপিত হয়েছিল বলে দাবি করেছেন পর্ন তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলস। সিবিএস চ্যানেলের ‘সিক্সটি মিনিটস’ প্রোগ্রামে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, যদিও আমি ট্রাম্পের প্রতি শারীরিকভাবে আকর্ষিত ছিলাম না তারপরও আমাদের মধ্যে সম্পর্ক হয়েছিল।

স্টর্মি ড্যানিয়েলস (প্রকৃত নাম স্টেফ্যানি ক্লিফোর্ড) দাবি করেছেন প্রচ্ছদে ট্রাম্পের ছবি সম্বলিত ফরচুন ম্যাগাজিন দিয়ে তিনি ট্রাম্পের নিতম্বে মেরেছিলেন।

এই পর্ন তারকা আরও দাবি করেছেন, ট্রাম্পের সঙ্গে এই সম্পর্ক তিনি আরও আগে ফাঁস করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু ২০১১ সালে এক রহস্যজনক ব্যক্তি তাকে ও তার শিশু সন্তানকে হুমকি দেয়ায় তিনি ২০০৬ সালের ওই গোপন অভিসারের বিষয়টি চেপে যান।

সিক্সটি মিনিটস প্রোগ্রামে মার্কিন সাংবাদিক অ্যান্ডারসন কুপারকে দেয়া সাক্ষাৎকারে আরও বেশ কয়েকটি বড় বোমা ফাটিয়েছেন ৩৯ বছর বয়সী এই পর্ন তারকা।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ও স্টর্মি ড্যানিয়েলসের অবৈধ সম্পর্কের বিষয়টি চলতি বছরের জানুয়ারিতে প্রকাশ পায়। খবর বের হয় যে, ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের মাত্র ১১দিন আগে ট্রাম্পের ব্যক্তিগত আইনজীবী মাইকেল কোহেন মুখ বন্ধ রাখার জন্য ড্যানিয়েলসকে এক লাখ ৩০ হাজার ডলারের একটি চুক্তি সই করেছে।

ওই গোপন চুক্তি বাতিল উল্লেখ করে এখন ট্রাম্পের বিরুদ্ধে মামলা চালাচ্ছেন ড্যানিয়েলস। এদিকে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের আইনজীবীর দাবি, ড্যানিয়েলস চুক্তির শর্ত ভঙ্গ করায় তাকে ২০ মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ দিতে হবে।

যদিও ড্যানিয়েলস বলেছেন, তিনি চেয়েছেন যাতে সবাই ‘সত্য’ জানতে পারে। এজন্য তিনি এক মিলিয়ন ডলার জরিমানা গুনতেও রাজি আছেন।

সাক্ষাৎকারটি প্রচারের পর ট্রাম্প টুইটে ছিলেন নীরব। ফ্লোরিডায় অবকাশ থেকে স্থানীয় সময় গতকাল রোববারই ওয়াশিংটনে ফিরেছেন ট্রাম্প। সাংবাদিকদের ছুড়ে দেওয়া প্রশ্নের কোনো উত্তর না দিয়েই দ্রুত হেঁটেছেন। ফার্স্ট লেডি মেলেনিয়া ট্রাম্প থেকে গেছেন ফ্লোরিডায় তাঁদের নিজস্ব অবকাশ কেন্দ্র মার-এ লাগোতে।

অারো খবর