,



ভাই আমাগো দেহনের কেউ নাই

Spread the love

জাওয়াদুল ইসলামঃ পথশিশুদের কে নিয়ে নেই কোনো চিন্তা , চেতনা কিংবা নেই কোনো পরিকল্পনা । এরা এদেশের নাগরিক হলেও নাগরিকের ০৫ টি মৌলিক চাহিদার কোনোটিই এরা ভোগ করতে পারছে না । না আছে শিক্ষা , না চিকিৎসা , বাসস্থান ,খাদ্য , না আছে পরিধান করার ভমত ভালো বস্ত্র ।

এরকমই শত শত পথশিশু রয়েছে এদেশে । রাজধানী র কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে দেখা মিললো এরকমই এক নাম না জানা পথ শিশুর । কথায় কথায় অনেক কিছু জিজ্ঞাসা করে শিশুটির মুখ থেকে জানলাম তার ছোট জীবনের আদ্যোপান্ত বিষয়বস্তু । বাসা মিরপুরে । মা নেই, কোথায় গেছে কিংবা বেচে আছে কিনা তাও বলতে পারেনা এই শিশুটি । বাবা মাটি কেটে যা রোজগার করে তা দিয়েই দুই বাবা ছেলের দিন চলে । লেখাপড়া করানোর সামর্থ নেই বাবার ।পাড়ার বন্ধুর সাথে বাসে করে মিরপুর থেকে বিমানবন্দর এবং ট্রেনে করে কমলাপুর এসেছে ০২ দিন হলো । উদ্দেশ্য যাত্রীদের ব্যাগ , লাগেজ বহন করে দু চার টাকা আয় করা । সাথে আসা সেই বন্ধু টি ফিরে চলে গেলেও যেতে পারেনি এই ছেলে শিশুটি । আলোর যাত্রা টিম যথাসাধ্য চেষ্টা করলো ছেলেটিকে ফেরত পাঠানোর । কমলাপুর থেকে ছেড়ে যাওয়া একটি ট্রেনে উঠিয়ে দেয়ার অনেক চেষ্টা করলেও ব্যর্থ হয় আলোর যাত্রা টিম । উক্ত ট্রেনের টিটি পথশিশুটিকে তো ট্রেনে উঠতে দিলোই না বরং ঘার ধাক্কা দিয়ে স্টেশনের প্লাটফর্ম থেকে নামিয়ে দিলো । পথশিশুদের প্রতি চলছে এ ধরণের অবহেলা । সময়মতো সকল সুবিধা না পেয়ে বঞ্চিত হচ্ছে আমাদের দেশের এই সব পথশিশুরা ।

রিপোর্টঃ জাওয়াদুল ইসলাম ঢাকা প্রতিনিধি (আলোর যাত্রা নিউজ)

অারো খবর