,



প্রবাসীর স্বর্ণ ও টাকা ডাকাতি করলো পুলিশ, গ্রেফতার ৭

Spread the love

ঢাকা : নরসিংদীতে প্রবাসীর গাড়ি থেকে স্বর্ণ ও নগদ টাকা ডাকাতির অভিযোগে রায়পুরা থানা পুলিশের দুই এসআই, দুই কনস্টেবলসহ ৭ জনকে গ্রেফতার করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ।

বুধবার দিনভর জেলার বিভিন্নস্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এসময় তাদের কাছ থেকে ডাকাতির স্বর্ণের বার, নগদ টাকা ও একটি প্রাইভেটকার জব্দ করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন, রায়পুরা থানা পুলিশের এসআই সাখাওয়াত হোসেন ও আজহারুল ইসলাম, কনস্টেবল মাইনুল ইসলাম ও সাইদুল ইসলাম। অন্যরা হলেন, নুরুজ্জামান মোল্লা, সাদেক মিয়া ও গাড়ি চালক নূর মোহাম্মদ।

এর আগে রায়পুরা থানা পুলিশের এসআই সাখাওয়াত হোসেনের বিরুদ্ধে ৭০ লক্ষ টাকা ডাকাতির অভিযোগ উঠে। যা তদন্তাধীন। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) সাইদুর রহমান এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

জানা গেছে, নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার হাইরমারা গ্রামের বাসিন্দা মালয়েশিয়া প্রবাসী সোহেল মিয়া গত শুক্রবার সন্ধ্যায় এয়ারপোর্ট থেকে একটি ভাড়া করা গাড়িতে করে স্বজন আব্দুল্লাহসহ বাড়ি ফিরছিলেন। পথে নরসিংদী সদর উপজেলার ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের সাহেপ্রতাব এলাকার একটি সিএনজিতে পাম্পে গ্যাস নেয়ার জন্য চালক গাড়ি থামায়।

এসময় অপর একটি প্রাইভেটকারযোগে আসা রায়পুরা থানা পুলিশের এসআই সাখাওয়াত ও আজহার আলীসহ সঙ্গীয় ফোর্স ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে তাদের আটক করে নিয়ে যায়। পরে পুরানপাড়া ব্রিজ এলাকায় নিয়ে প্রবাসী সোহেলের কাছে থাকা দুইটি স্বর্ণের বার, মোবাইল সেট ও নগদ টাকা লুট করে নেয়। বিষয়টি জানাজানি হলে তাদের গ্রেফতার করা হবে এমন ভয় দেখিয়ে তাদের ছেড়ে দেয়।

পরে প্রবাসী সোহেলের আত্মীয় মো. শাহজাহান নরসিংদীর পুলিশ সুপার বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। পরে পুলিশ সুপারের নির্দেশে গোয়েন্দা পুলিশের ওসি সাইদুর রহমান, এসআই আব্দুল গাফ্ফার ও রুপম সরকার তদন্তে নামে। পরে তারা সিএনজি স্টেশনের সিসিটিভির ফুটেজে ডাকাতির সত্যতা পায়।

অারো খবর