,



পুঁজিবাজারে সূচক কমেছে

Spread the love

টানা কয়েকদিন সূচক বৃদ্ধির পর সপ্তাহের চর্তুথ কার্যদিবস মঙ্গলবার (১৯ জুলাই) পুঁজিবাজারে সূচক কমেছে। পাশাপাশি কমেছে লেনদেন ও বেশির ভাগ কোম্পানির শেয়ারের দাম।

এদিন সূচক বৃদ্ধির মধ্য দিয়ে লেনদেন শুরু হয়ে চলে বেলা পৌনে ১১টা পর্যন্ত। এরপর শেয়ার বিক্রির প্রবণতা বেড়ে যাওয়ায় সূচক কমতে শুরু করে। যা দিনের লেনদেনের শেষ পর্যন্ত অব্যাহত ছিলো।

দিন শেষে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সূচক কমেছে ১৫ পয়েন্ট, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) কমেছে ২২ পয়েন্ট।

এর আগের টানা তিন কার্যদিবস ঢাকার বাজারে সূচক বেড়েছে। আর চট্টগ্রামের বাজারে বেড়েছে টানা সাত কার্যদিবস।
এদিন ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩২৪টি সিকিউরিটিজের ১০ কোটি ৯৯ লাখ ১১ হাজার ২৬৮টি শেয়ারের হাতবদল হয়েছে। যা টাকার অংকে ৩৯৯ কোটি ৬৩ লাখ ২৭ হাজার টাকা। আগের দিন লেনদেন হয়েছে ৪৯৬ কোটি ৩৪ লাখ ২১ হাজার টাকার।

তিন সূচকে পথচলা ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের চেয়ে ১৪.৮৮ পয়েন্ট কমে ৪ হাজার ৫৫৬ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। ডিএসইএস সূচক আগের দিনের চেয়ে ৪.৫৫ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ১১৪ পয়েন্টে এবং ডিএসই-৩০ সূচক আগের দিনের চেয়ে ৫.৯৪ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৭৮১ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩২৪ সিকিউরিটিজের মধ্যে দাম বেড়েছে ৭৩টির, কমেছে ২০১টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫০টির দাম।

দেশের অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) প্রধান সূচক সিএসইএক্স ২৩.৯২ পয়েন্ট কমে ৮ হাজার ৫২০ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। এদিন সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩১ কোটি ৯৮ লাখ ৯১ হাজার ৬০১ টাকা। আগের দিন লেনদেন হয়েছে ৩১ কোটি ৯২ লাখ ৪৮ হাজার ৫৬৪ টাকা।

লেনদেন হওয়া ২৩৯টি সিকিউরিটিজের মধ্যে দাম বেড়েছে ৫৭টির, কমেছে ১৪২টির এবং অপরিবর্তিত আছে ৪০টির।

অারো খবর