,



ডিএসইতে মূলধন বাড়লেও শঙ্কায় বিনিয়োগকারীরা!

Spread the love

ঈদ পরবর্তী পুঁজিবাজারের প্রথম সপ্তাহে সূচক ও বেশির ভাগ কোম্পানির শেয়ারের দাম বেড়েছে। এতে ডিএসইতে বাজার মূলধন যোগ হয়েছে হাজার কোটি টাকার বেশি। তবুও বাজারে বিনিয়োগ করতে ভরসা পাচ্ছেন না বিনিয়োগকারীরা। উল্টো আস্থাহীনতায় নতুন করে পুঁজি হারানোর ভয়ে শেয়ার কেনার চেয়ে বিক্রি করছেন।

বাজার পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, দু’দিন সূচক বাড়লেও তিনদিন সূচক কমার মধ্য দিয়ে সপ্তাহ পার করেছে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই)। তবে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ছিলো একটু ব্যতিক্রম। এ বাজারে সূচক কমেছে একদিন। ফলে সপ্তাহ শেষে উভয় পুঁজিবাজারে সূচক, বাজার মূলধন ও বেশির ভাগ কোম্পানির শেয়ারের দাম বাড়লেও কমেছে লেনদেনের পরিমাণ।

বাজারের প্রাণ প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা সক্রিয় না হলে বাজার ঘুরে দাঁড়াবে না বলে মনে করেন সিএসইর ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাইফুর রহমান মজুমদার।

তিনি বাংলানিউজকে বলেন, পুঁজিবাজারে ইতিবাচক ধারা না ফেরায় পুঁজি হারানোর শঙ্কায় বিনিয়োগ থেকে দূরে রয়েছেন বিনিয়োগকারীরা।

ডিএসইতে পাঁচ কার্যদিবসে মোট এক হাজার ৭১৩ কোটি ৬০ লাখ ৮৯ হাজার ৪৭৩ টাকার লেনদেন হয়েছে। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিলো এক হাজার ৯৭০ কোটি টাকা ৮ লাখ ৯১৬ টাকা। যা লেনদেনের হিসেবে আগের সপ্তাহের চেয়ে ২৫৬ কোটি ৪৭ লাখ ১১ হাজার ৪৪৩ টাকা কমেছে। শতাংশের হিসেবে কমেছে ১৩.০২।

লেনদেন কমলেও গত সপ্তাহে ৩২৯টি সিকিউরিটিজের মধ্যে দাম বেড়েছে ১৭৮টির, কমেছে ১২৮টির আর অপরিবর্তিত রয়েছে ২২টির। আগের সপ্তাহে দাম বেড়েছিলো ২৪০টির, কমেছিলো ৬১টির ও অপরিবর্তিত ছিলো ২৭টি সিকিউরিটিজের শেয়ারের দাম।

ডিএসইর তিন সূচকের মধ্যে প্রধান সূচক ডিএসইএক্স আগের সপ্তাহের চেয়ে ৩০.৩৪ বেড়ে ৪ হাজার ৫৩৭ পয়েন্ট দাঁড়িয়েছে। অপর দুই সূচকের মধ্যে আগের সপ্তাহের চেয়ে ডিএস-৩০ সূচক ৭.৮৮ পয়েন্ট এবং ডিএসইএস শরীয়াহ সূচক বেড়েছে ৫.৯১ পয়েন্ট।

সূচক ও বেশির ভাগ শেয়ারের দাম বাড়ায় গত সপ্তাহে বাজার মূলধন ১ হাজার ২৩৭ কোটি ৭২ লাখ ৬১ হাজার ৮৯৮ টাকা যোগ হয়ে দাঁড়িয়েছে ৩ লাখ ১৯ হাজার ৮১২ কোটি ৬৬ লাখ ০৬ হাজার ৮১২ টাকা। আগের সপ্তাহে ছিলো ৩ লাখ ১৮ হাজার ৫৭৪ কোটি ৯৩ লাখ ৪৪ হাজার ৯১৩ টাকা। যা শতাংশের হিসেবে ০.৩৯ শতাংশ বেশি।

দেশের অপর পুঁজিবাজার সিএসইতে গত সপ্তাহে লেনদেন হয়েছে ১০২ কোটি ২৯ লাখ ২৯ হাজার ৪৬৩ টাকা। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিলো ২২৯ কোটি ৩৪ লাখ ৯৪ হাজার ১২১ টাকা।

লেনদেন হওয়া সিকিউরিটিজগুলোর মধ্যে গত সপ্তাহে দাম বেড়েছে ১৫৪টির, কমেছে ১১১টির ও অপরিবর্তিত রয়েছে ১৭টির দাম। এই সময়ে সিএসইর প্রধান সূচক সিএসইএক্স আগের সপ্তাহের চেয়ে ৮১ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ৪৭৭ পয়েন্টে। আগের সপ্তাহে ছিলো ৮ হাজার ৩৯৬ পয়েন্টে।

অারো খবর